অনলাইন শপিং,ফ্রিল্যান্সিং ও অন্যান্য কাজ করার জন্য এই ওয়েবসাইটে একটি একাউন্ট থাকতে হবে। একাউন্ট খোলা মানেই টাকা দিতে হবে এমন না। ফ্রিল্যান্সার অথবা বায়ার, এর যে কোন একটি চয়েজ করে একাউন্ট তৈরি করতে হবে।অথবা শপিং সেকশনের যে কোন প্রোডাক্টের এ্যাড টু কার্ট বাটনে ক্লিক করেও আপনি একাউন্ট তৈরি করতে পারবেন।সাইনআপ করুন এবং কাজ পোষ্ট করুন। ফ্রিল্যান্সারগণ কাজ খুজুন ও বিড করুন।একাউন্ট তৈরি হলে আপনি আপনার দেয়া ইউজার আইডি ও পাসওর্য়াড ব্যবহার করে সাইটে লগইন করতে পারবেন। You must have an account on this website for online shopping, freelancing and other activities. Opening an account does not mean that you have to pay. Freelancer or buyer, you have to create an account by choosing one of them. Or you can create an account by clicking on the add to cart button of any product in the shopping section.Sign up and post work. Freelancers find work and bid. Once the account is created, you can login to the site using your given user ID and password.

We have 50 guests and no members online

All Posts

4786 posts found

National/International News Group
04 November 2021, 17:00

টসে হেরে ব্যাটিংয়ে বাংলাদেশ

টসে হেরে ব্যাটিংয়ে বাংলাদেশ
অধরা জয় দেবে কী ধরা নাকি খালি হাতেই ফিরবেন টাইগাররা? এমন প্রশ্ন সামনে রেখে আজ বিকেল ৪টায় দুবাই আন্তর্জাতিক ক্রিকেট স্টেডিয়ামে মাঠে নামছে বাংলাদেশ। প্রতিপক্ষ শক্তিশালী অস্ট্রেলিয়া।

এ ম্যাচ বাংলাদেশের নিয়মরক্ষার বলা হলেও দেশের ক্রিকেটপ্রেমীদের কাছে অনেক গুরুত্বপূর্ণ। ঘরের মাঠে ৪-১ ব্যবধানে নাস্তানাবুদ করা অস্ট্রেলিয়াকে হারানোর দাবি রাখেছে আবেগী ক্রীড়ামোদিরা।

জয় পেলে বাংলাদেশ দলের জন্যও ভালো। দৈবক্রমে জিতে গেলে বাংলাদেশের নামের পাশে দুটি পয়েন্ট যোগ হবে। প্রাইজমানি কিছুটা বাড়বে। র‌্যাংকিংয়ে অবনমন ঠেকানো যাবে। আর হারলে পূর্ণ হবে ব্যর্থতার ষোলোকলা। ইতোমধ্যে টস অনুষ্ঠিত হয়েছে। টসে জিতে বাংলাদেশকে ব্যাটিংয়ের আমন্ত্রণ জানিয়েছেন অসি অধিনায়ক অ্যারন ফিঞ্চ।
0 Share Comment
Dhaka Division
03 November 2021, 21:25

ঢাকায় চাকরি দিচ্ছে প্রিমিয়ার সিমেন্ট মিলস

ঢাকায় চাকরি দিচ্ছে প্রিমিয়ার সিমেন্ট মিলস


জনবল নিয়োগের বিজ্ঞপ্তি প্রকাশ করেছে প্রিমিয়ার সিমেন্ট মিলস লিমিটেড। প্রতিষ্ঠানটিতে কাজ করতে আগ্রহী ও যোগ্য প্রার্থীরা অনলাইনের মাধ্যমে সহজেই আবেদন করতে পারবেন।

পদের নাম

অ্যাসিস্ট্যান্ট ম্যানেজার।

শিক্ষাগত যোগ্যতা

বাণিজ্যে স্নাতক অথবা স্নাতকোত্তর পাস।

অভিজ্ঞতা

সিমেন্ট, খাদ্য (প্যাকেজড)/পানীয়, উৎপাদন (এফএমসিজি), পেইন্ট, ইস্পাত, টাইলস/সিরামিক প্রভৃতি ক্ষেত্রে কাজের পাঁচ বছরের অভিজ্ঞতা থাকতে হবে।

বয়স

অনূর্ধ্ব ৪০ বছর।

কর্মস্থল

ঢাকা।

বেতন

আলোচনা সাপেক্ষে।

আবেদনের পদ্ধতি

বিডিজবস অনলাইনের মাধ্যমে আবেদন করতে পারবেন।

আবেদনের শেষ তারিখ

১১ নভেম্বর, ২০২১।

সূত্র : বিডিজবস
0 Share Comment
Dhaka Division
03 November 2021, 21:24

সিনিয়র অফিসার পদে চাকরি করুন

সিনিয়র অফিসার পদে চাকরি করুন


জনবল নিয়োগের বিজ্ঞপ্তি প্রকাশ করেছে আকিজ গ্রুপের অঙ্গপ্রতিষ্ঠান আকিজ প্রিন্টিং অ্যান্ড প্যাকেজ লিমিটেড। প্রতিষ্ঠানটিতে কাজ করতে আগ্রহী ও যোগ্য প্রার্থীরা অনলাইনে সহজেই আবেদন করতে পারবেন।

পদের নাম

সিনিয়র অফিসার - প্লানিং।

যোগ্যতা

যেকোনো বিষয়ে স্নাতক পাস।

অভিজ্ঞতা

তিন বছর।

বয়স

অনূর্ধ্ব ৪০ বছর।

কর্মস্থল

গাজীপুর (টঙ্গী)।

বেতন

আলোচনা সাপেক্ষে।

আবেদনের পদ্ধতি

বিডিজবস অনলাইনে আবেদন করতে পারবেন।

আবেদনের সময়

আবেদন করা যাবে ১৮ নভেম্বর, ২০২১ পর্যন্ত।

সূত্র : বিডিজবস
0 Share Comment
Dhaka Division
03 November 2021, 21:23

চাকরি করুন অনলাইন সংবাদমাধ্যম ঢাকা মেইলে

চাকরি করুন অনলাইন সংবাদমাধ্যম ঢাকা মেইলে


জনবল নিয়োগের বিজ্ঞপ্তি প্রকাশ করেছে অনলাইন সংবাদমাধ্যম ঢাকা মেইল ডট কম। প্রতিষ্ঠানটিতে কাজ করতে আগ্রহী ও যোগ্য প্রার্থীরা অনলাইনে আবেদন করতে পারবেন।

যেসব পদে নিয়োগ দেওয়া হবে

বার্তা সম্পাদক, সহকারী বার্তা সম্পাদক, জ্যেষ্ঠ সহ-সম্পাদক, সহ-সম্পাদক, জ্যেষ্ঠ প্রতিবেদক, নিজস্ব প্রতিবেদক, সোশ্যাল মিডিয়া এক্সিকিউটিভ।

বেতন ও সুযোগ সুবিধা

১। বেতন আলোচনা সাপেক্ষে

২। অন্যান্য সুবিধা কোম্পানির নীতিমালা অনুসারে প্রদান করা হবে।

আবেদন করবেন যেভাবে

www.dhakamail.com/career এর মাধ্যমে আবেদন করতে পারবেন।

আবেদনের শেষ তারিখ: ১৫ নভেম্বর ২০২১
0 Share Comment
Dhaka Division
03 November 2021, 21:21

খেলে হারল স্কটল্যান্ড

খেলে হারল স্কটল্যান্ড
বড় লক্ষ্য টপকাতে নেমে রীতিমতো কিউইদের ঘাম ঝড়িয়ে ছেড়েছে স্কটিশরা। ম্যাচটি নিউজিল্যান্ড জিতলেও তুমুল লড়াই করেছে স্কটল্যান্ড। হেরেছে মাত্র ১৬ রানে।

বিশ্বকাপে নিজেদের শুরুটা অবশ্য হার দিয়ে হয় কিউইদের। পাকিস্তানের বিপক্ষে হারলেও ভারতকে হারিয়ে ঘুরে দাঁড়ায় কেন উইলিয়ামসনরা। বুধবার (৩ নভেম্বর) স্কটল্যান্ডের মুখোমুখি হয়েছিল ব্ল্যাকক্যাপসরা। দুবাইয়ে আগে ব্যাট করে মার্টিন গাপটিলের ঝোড়ো ৯৩ রানের ইনিংসের উপর ভর করে স্কোর বোর্ডে ১৭২ রানের সংগ্রহ পায় নিউজিল্যান্ড। ১৭৩ রানের লক্ষ্য টপকাতে নেমে লড়াই করে স্কটিশরা। তাদের ইংনিস থামে ১৫৬ রানে। এতে ১৬ রানের জয় পায় নিউজিল্যান্ড।

দলীয় ২১ রানে অধিনায়ক কাইল কোয়েটজার ব্যক্তিগত ১৭ রান করে আউট হলেও পাওয়ার-প্লেতে আগ্রাসী ব্যাটিং বন্ধ করে স্কটল্যান্ড। ৬ ওভারে ৪৮ রান তোলে তারা। দ্বিতীয় উইকেট পার্টনারশিপে দলকে টেনে তোলার চেষ্টা করেন জর্জ মুন্সে আর ম্যাথিউ ক্রস। তাদের পার্টনারশিপ থেকে আসে ৪৫ রান। জর্জ ২২ রান করে আউট হলে কিছুক্ষণ পর একই পথে হাঁটেন ক্রসও। খেলেন ২৭ রানের ইনিংস।

সুবিধা করতে পারেননি ক্যালাম ম্যাকলিওড। ১২ রানে বোল্টের দ্বিতীয় শিকারে পরিণত হন তিনি। রিচি বেরিংটনের ব্যাট থেকে আসে ২০ রান। দলীয় ১০৬ রানে ৫ উইকেট হারানো দলের হাল ধরেন মাইকেল লিস্ক। শেষদিকে ব্যাট হাতে ঝড় তোলেন তিনি। শেষ ওভারে জয়ের জন্য স্কটিশদের প্রয়োজন পড়ে ৩২ রান। তবে এ যাত্রায় ইতিহাস লেখা হলো না স্কটল্যান্ডের। তাদের ইংনিস থামে ১৫৬ রানে। এতে ৫৬ রানের জয় পায় নিউজিল্যান্ড। টানা ৩ হারে বিশ্বকাপ শেষ হয়ে গেল স্কটিশদের।

এর আগে টস হেরে আগে ব্যাট করতে নেমে অবশ্য শুরুটা ভালো হয়নি নিউজিল্যান্ডের। দলীয় ৩৫ রানেই ড্যারিল মিচেল ও কেন উইলিয়ামসনের উইকেট হারিয়ে বসে কিউইরা। সুবিধা করতে পারেননি ডেভন কনওয়েও। মিচেল ১৩, উইলিয়ামসন শূন্য ও কনওয়ে আউট হন ১ রান করে। ৫২ রানে ২ উইকেট হারানো দলকে টেনে তোলেন গাপটিল আর গ্লেন ফিলিপস। চতুর্থ উইকেটে দুজন যোগ করেন ১০৫ রান। যেখানে ৩৫ বলে অর্ধশতক তুলে নেন গাপটিল।

পরে ফিলিপস ৩৩ রান করে আউট হলে ব্যাট হাতে ঝড় তোলেন গাপটিল। তবে আক্ষেপ নিয়ে মাঠ ছেড়তে হয় তাকে। ইনিংসের ১৯তম ওভারে ব্র্যাডলি হুইলকে উড়িয়ে মারতে গিয়ে ক্যালাম ম্যাকলিওডের হাতে ধরা পড়েন তিনি। শতকের খুব কাছে গিয়েও ফিরতে হয় ৯৩ রানে। ৫৬ বলে ঝোড়ো ইনিংসটি সাজান ৬টি চার ও ৭টি ছয়ের মারে। গাপটিলের ব্যাটে স্কটল্যান্ডের বিপক্ষে বড় সংগ্রহ দাঁড় রেছে নিউজিল্যান্ড। নির্ধারিত ২০ ওভার শেষে ৫ উইকেট হারিয়ে স্কোর বোর্ডে ১৭২ রানের পুঁজি পায় কিউইরা।
0 Share Comment
Dhaka Division
03 November 2021, 21:17

অস্তিত্ব রক্ষার ম্যাচে ব্যাটিংয়ে ভারত

অস্তিত্ব রক্ষার ম্যাচে ব্যাটিংয়ে ভারত
ভারতের অস্তিত্ব রক্ষার ম্যাচ। অন্যদিকে সেমিতে পথ সহজ করার ম্যাচ আফগানিস্তানের।
বুধবার (৩ নভেম্বর) আবুধাবিতে মহাগুরুত্বপূর্ণ এই লড়াইয়ে টস জিতে ফিল্ডিংয়ের সিদ্ধান্ত নিয়েছেন আফগান অধিনায়ক মোহাম্মদ নবি। অর্থাৎ ভারত প্রথমে ব্যাটিং করবে।

সুপার টুয়েলভে প্থম দুই ম্যাচেই হেরে সেমির স্বপ্ন ধূসর হয়ে গেছে ভারতের। অন্যদিকে ৩ ম্যাচে ২ জয় নিয়ে আফগানিস্তান অনেকটাই এগিয়ে।

ভারতীয় একাদশ থেকে বাদ পড়েছেন বিস্ময় স্পিনা বরুন চক্রবর্তী। ফিরেছেন হার্ডহিটিং মিডলঅর্ডার ব্যাটসম্যান সূর্যকুমার যাদব।

অন্যদিকে আফগানিস্তান একাদশে টানা দ্বিতীয় ম্যাচে নেই মুজিব উর রহমান। গত ম্যাচে অবসরে যাওয়া আসগর আফগানের বদলে ঢুকেছেন শরফুদ্দিন আশরাফ।

ভারতীয় একাদশ
রোহিত শর্মা, লোকেশ রাহুল, বিরাট কোহলি (অধিনায়ক), সূর্যকুমার যাদব, রিশাভ পান্ত, হার্দিক পান্ডিয়া, রবীন্দ্র জাদেজা, শার্দুল ঠাকুর, মোহাম্মদ শামি, রবিচন্দ্রন অশ্বিন, জাসপ্রিত বুমরাহ।

আফগানিস্তান একাদশ
হজরতউল্লাহ জাজাই, মোহাম্মদ শাহজাদ, রহমানুল্লাহ গুরবাজ, নাজিবুল্লাহ জাদরান, মোহাম্মদ নবি (অধিনায়ক), শরফুদ্দিন আশরাফ, গুলবাদিন নাইব, রশিদ খান, করিম জানাত, নাভিন-উল-হক, হামিদ হাসান।
0 Share Comment
Dhaka Division
03 November 2021, 21:16

২০০ কেজির শাপলাপাতা মাছ ৫৫ হাজারে বিক্রি

২০০ কেজির শাপলাপাতা মাছ ৫৫ হাজারে বিক্রি


আমতলীর মাছ বাজারে মঙ্গলবার (২ নভেম্বর) সন্ধ্যায় ২০০ কেজি ওজনের একটি শাপলাপাতা মাছ ৫৫ হাজার টাকায় বিক্রি হয়েছে। মাছটি কিনে নেন খুচরা বিক্রেতা মো. রফিকুল ইসলাম নামে এক মাছ ব্যবসায়ী।

হেজবুল্লাহ মৎস্য আড়তে মাছটি নিয়ে আসেন কলাপাড়া উপজেলার মহিপুরের ওবায়দুল নামে এক জেলে। হেজবুল্লাহ মৎস্য আড়তের মালিক মো. মেনাজ উদ্দিন জানান, গত ২-১ বছরের মধ্যে আমতলী বাজারে এত বড় শাপলা পাতা মাছ আসেনি।

মঙ্গলবার রাতে এবং বুধবার সকালে মাছটি বিক্রি করার জন্য মাইকিং করা হয়। বুধবার সকালে মাছটি কেটে ভাগা দিয়ে ৩শ’টাকা কেজি দরে বিক্রি করেন মাছ ব্যবসায়ী রফিকুল ইসলাম। ভ্যানে করে ঘুরানোর সময় প্রচুর উসুক মানুষ মাছটি এক নজর দেখার জন্য ভির জমান।

জেলে ওবায়দুল জানান, এটি সাগরে মাছ ধরার সময় জালে ধরা পরে।

মাছ ব্যবসায়ী রফিকুল ইসলাম জানান, শাপলা পাতা মাছের চাহিদা থাকায় মাছটি কিনে ৩শ’ টাকা কেজি দরে বুধবার সকালে বিক্রি করা হয়েছে।

আমতলী উপজেলা মৎস্য কর্মকর্তা হালিমা সর্দার জানান, এ মাছটি খেতে সুস্বাধু। এতে ওমেঘা থ্রি ফ্যাটি এসিড থাকে। এতে শিশুর মস্তিস্ক গঠন ও মেধা বিকাশ ত্বরান্বিত করে। তবে শাপলা পাতা মাছটি বিলুপ্তির পথে। এ মাছ ধরা এবং বিক্রি করা আইনত দণ্ডনীয় অপরাধ।
0 Share Comment
Dhaka Division
03 November 2021, 21:14

লন্ডন পৌঁছেছেন প্রধানমন্ত্রী

লন্ডন পৌঁছেছেন প্রধানমন্ত্রী
বিশ্ব নেতাদের জলবায়ু বিষয়ক কপ-২৬ শীর্ষ সম্মেলন এবং উচ্চপর্যায়ের বৈঠকে যোগদান শেষে গ্লাসগো থেকে লন্ডন পৌঁছেছেন প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা।

প্রধানমন্ত্রীর প্রেস সচিব ইহসানুল করিম জানিয়েছেন, ‘বিমান বাংলাদেশ এয়ারলাইন্সের একটি ভিভিআইপি ফ্লাইট প্রধানমন্ত্রী ও তার সফর সঙ্গীদের নিয়ে স্থানীয় সময় বুধবার বেলা ১টা ৫২ মিনিটে লন্ডনের হিথ্রো আন্তর্জাতিক বিমানবন্দরে অবতরণ করে।’

যুক্তরাজ্যে বাংলাদেশের হাইকমিশনার সাইদা মুনা তাসনিম বিমানবন্দরে প্রধানমন্ত্রীকে অভ্যর্থনা জানান।

প্রেস সচিব আরও জানান, ‘এর আগে প্রধানমন্ত্রী তার সফরসঙ্গীদের নিয়ে বিমান বাংলাদেশ এয়ারলাইন্সের একটি ভিভিআইপি ফ্লাইট (বিজি-২১০৫) লন্ডনের উদ্দেশে গ্লাসগো আন্তর্জাতিক বিমানবন্দর ত্যাগ করে।’

প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা বিশ্ব নেতাদের শীর্ষ সম্মেলন এবং অন্যান্য উচ্চপর্যায়ের বৈঠকে যোগদানের লক্ষে যুক্তরাজ্য ও ফ্রান্সে দুই সপ্তাহের সফরের উদ্দেশে গত ৩১ অক্টোবর গ্লাসগো পৌঁছান।
0 Share Comment
Dhaka Division
03 November 2021, 21:13

ঢাকা মহানগরীর ডেমরা থানাধীন নলছাটার ফাতেমা
রশীদ আইডিয়াল স্কুলে আকর্ষণীয় বেতনে বাংলা, ইংরেজি, পৌরনীতি ও নাগরিকতা,
রসায়ন, জীব, ইসলাম ও নৈতিকশিক্ষা, হিসাববিজ্ঞান ও সাধারণ বিষয়ে ১ জন করে
শিক্ষক নিয়োগ দেয়া হবে। সংশ্লিষ্ট বিষয়ে স্নাতক/স্নাতক
সম্মান/স্নাতকোত্তর ডিগ্রিধারী হতে হবে।


আগ্রহী প্রার্থীদের ৫ নভেম্বর ৯টা ৩০ মিনিটে দরখাস্তসহ উপস্থিত থাকতে হবে।


যোগাযোগ : নলছাটা ফাতেমা রশীদ আইডিয়াল স্কুল, ডেমরা, ঢাকা


মোবাইল:- ০১৭১৬৬৭১০০১, ০১৫১৫৬৩১২৪২।


0 Share Comment
Dhaka Division
03 November 2021, 21:12

বাংলাদেশ স্ট্যান্ডার্ডস অ্যান্ড টেস্টিং
ইনস্টিটিউশনে (বিএসটিআই) জনবল নিয়োগের জন্য বিজ্ঞপ্তি প্রকাশ করা হয়েছে।
প্রতিষ্ঠানটির চট্টগ্রাম ও খুলনায় বিএসটিআইয়ের আঞ্চলিক অফিস স্থাপন ও
আধুনিকীকরণ (১ম সংশোধিত) শীর্ষক প্রকল্পে জনবল নেওয়া হবে


পদের নাম: অফিস সহকারী কাম কম্পিউটার অপারেটর

পদসংখ্যা: ১


যোগ্যতা: দ্বিতীয় বিভাগে এইচএসসি/সমমানের গ্রেড।


কম্পিউটারে দক্ষতা এবং ইংরেজি বলা ও লেখায় পারদর্শী হতে হবে।

বয়স: সর্বোচ্চ ৪০ বছর


বেতন: সর্বসাকল্যে ১৭,০৪৫ টাকা


যেভাবে আবেদন


আবেদনপত্র হাতে হাতে, ডাকযোগে/কুরিয়ারে
পাঠানো যাবে। আবেদনপত্র পাঠানোর ঠিকানা: প্রকল্প পরিচালক, চট্টগ্রাম ও
খুলনায় বিএসটিআইয়ের আঞ্চলিক অফিস স্থাপন ও আধুনিকীকরণ (১ম সংশোধিত) শীর্ষক
প্রকল্প, বাংলাদেশ স্ট্যান্ডার্ডস অ্যান্ড টেস্টিং ইনস্টিটিউশন (বিএসটিআই),
ডিএমআই, ১১৬/ক, তেজগাঁও শিল্প এলাকা, ঢাকা-১২০৮।


আবেদনের শেষ তারিখ ১৫ নভেম্বর ২০২১।

0 Share Comment
Dhaka Division
03 November 2021, 21:12

নিয়োগ বিজ্ঞপ্তি প্রকাশ করেছে এসিআই মোটরস
লিমিটেড। প্রতিষ্ঠানটিতে ‘মার্কেটিং অফিসার/ অ্যাসেসমেন্ট অ্যান্ড রিকভেরি
অফিসার/ সার্ভিস ইঞ্জিনিয়ার’ পদে নিয়োগ দেওয়া হবে। আগ্রহী প্রার্থীরা
অনলাইনের মাধ্যমে সহজেই আবেদন করতে পারবেন।


পদের নাম


মার্কেটিং অফিসার/ অ্যাসেসমেন্ট অ্যান্ড রিকভেরি অফিসার/ সার্ভিস ইঞ্জিনিয়ার।


যোগ্যতা


স্বীকৃত যেকোনো বিশ্ববিদ্যালয় থেকে যেকোনো
বিষয়ে স্নাতক পাস প্রার্থীরা আবেদন করতে পারবেন। এক থেকে দুই বছরের
অভিজ্ঞতা প্রাপ্ত প্রার্থীরা অগ্রাধিকার পাবেন। প্রার্থীর ড্রাইভিং
লাইসেন্স (মোটরসাইকেল) ও চাপের মধ্যে কাজের মানসিকতা থাকতে হবে।


কর্মস্থল


সারা দেশ (প্রতিষ্ঠান নির্ধারিত)।


বেতন


আলোচনা সাপেক্ষে।


আবেদনের প্রক্রিয়া


আগ্রহী প্রার্থীদের প্রয়োজনীয় কাগজপত্র সহ নিম্নোক্ত ঠিকানায় আবেদন করতে হবে।


ঠিকানা : এইচআর ডিপার্টমেন্ট, এসিআই সেন্টার, ২৪৫ তেজগাঁও শিল্প এলাকা, ঢাকা-১২০৮।


আবেদনের শেষ তারিখ


৬ নভেম্বর, ২০২১।


0 Share Comment
Dhaka Division
03 November 2021, 21:12

সর্বশেষ জনবল কাঠামো ও এমপিও
নীতিমালা-২০১৮ অনুযায়ী এবং ইসলামী আরবী বিশ্ববিদ্যালয়ের নিয়োগ বিধি
মোতাবেক ধজী হামিদিয়া ফাযিল(ডিগ্রী)মাদরাসায় শূন্য পদে একজন অভিজ্ঞ
উপাধ্যক্ষ নিয়োগ দেওয়া হবে।


আগ্রহী প্রার্থীদের ২৫ নভেম্বরের মধ্যে ১
হাজার ৫০০ টাকার (অফেরৎযোগ্য) পোস্টাল অর্ডার ২ কপি ছবি ও প্রয়োজনীয়
কাগজপত্রসহ অধ্যক্ষ বরাবরে রেজিঃ ডাকে/হাতে হাতে আবেদন পৌঁছাতে হবে।


পূর্বের আবেদনকারীদের পোস্টাল অর্ডার লাগবে না। 


যোগাযোগঃ অধ্যক্ষ, ধজী হামিদিয়া ফাযিল(ডিগ্রী)মাদরাসা, আমিরিয়া গোপালপুর, ডাসার, মাদারীপুর।


মোবাইল-০১৯৩১-৬১৬০২৫।


0 Share Comment
Dhaka Division
03 November 2021, 21:12

‘ফ্রি প্রেস অ্যাওয়ার্ড’ পেলেন সাংবাদিক রোজিনা ইসলাম

‘ফ্রি প্রেস অ্যাওয়ার্ড’ পেলেন সাংবাদিক রোজিনা ইসলাম


সাহসী সাংবাদিকতার জন্য আন্তর্জাতিক স্বীকৃতি পেলেন প্রথম আলোর জ্যেষ্ঠ প্রতিবেদক রোজিনা ইসলাম, যিনি বাংলাদেশে করোনাকালে স্বাস্থ্য খাতের অনিয়ম তুলে ধরতে গিয়ে নিগ্রহ, নির্যাতন ও মামলার শিকার হয়েছেন। নেদারল্যান্ডসের আমস্টারডামভিত্তিক সংস্থা ফ্রি প্রেস আনলিমিটেড তাঁকে এ বছরের ‘ফ্রি প্রেস অ্যাওয়ার্ড-২০২১’ দিয়েছে। তিনি পুরস্কারটি পেয়েছেন সেরা অদম্য সাংবাদিক বা মোস্ট রেজিলিয়েন্ট জার্নালিস্ট শ্রেণিতে।

মুক্ত সাংবাদিকতার জন্য লড়াই করা সাংবাদিকদের এই পুরস্কার দেওয়া হয়। গত বছর একই পুরস্কার পেয়েছিলেন এ বছর শান্তিতে নোবেল পাওয়া ফিলিপাইনের সাংবাদিক মারিয়া রেসা।

সংবাদমাধ্যমের স্বাধীনতা ও সাংবাদিকতার উৎকর্ষের জন্য বিশ্বের ৪০টির বেশি দেশে কাজ করে ফ্রি প্রেস আনলিমিটেড। বিশ্বব্যাপী ৯০টির বেশি সংবাদমাধ্যমের সঙ্গে সম্পৃক্ততা রয়েছে তাদের। সংস্থাটিকে সহায়তা করে নেদারল্যান্ডসের পররাষ্ট্র মন্ত্রণালয়।

নেদারল্যান্ডসের হেগ শহরের সিটি হলে মঙ্গলবার সন্ধ্যায় (বাংলাদেশ সময় দিবাগত রাত সোয়া ১২টা) আয়োজিত এক অনুষ্ঠানে পাকিস্তানের খ্যাতিমান সাংবাদিক হামিদ মীরের হাত থেকে রোজিনা ইসলামের পক্ষে পুরস্কারটি গ্রহণ করেন তাঁর স্বামী মো. মনিরুল ইসলাম। রোজিনা ইসলামের পাসপোর্ট জব্দ থাকায় তিনি পুরস্কারটি নিতে নেদারল্যান্ডস যেতে পারেননি।

তবে ভার্চ্যুয়াল মাধ্যমে অনুষ্ঠানে যুক্ত হয়ে তিনি বলেন, ‘আমি এই পুরস্কার দেশের সেসব সাংবাদিককে উৎসর্গ করছি, যাঁরা প্রতিকূলতার মধ্যেও সেরা সাংবাদিকতা করে যাচ্ছেন।’ তিনি বলেন, ‘কারাগার থেকে বেরিয়ে আমি বলেছিলাম, সাংবাদিকতা চালিয়ে যাব। এই পুরস্কার পাওয়ার পর আমি আবারও বলছি, আমার লড়াই চলবে।’

ফ্রি প্রেস আনলিমিটেড দুটি শ্রেণিতে ফ্রি প্রেস অ্যাওয়ার্ড দিয়ে থাকে—সেরা অদম্য সাংবাদিক বা মোস্ট রেজিলিয়েন্ট জার্নালিস্ট এবং বছরের সেরা নবাগত সাংবাদিক বা ‘নিউ কামার অব দ্য ইয়ার’। সাংবাদিক রোজিনা পুরস্কারটি পান সবচেয়ে অদম্য সাংবাদিক শ্রেণিতে। বছরের সেরা নবাগত শ্রেণিতে পুরস্কার পেয়েছেন ভারতের তরুণ সাংবাদিক ভাট বুরহান।


সাংবাদিকতায় রোজিনা ইসলামের সাহসিকতা ও নিরলস প্রচেষ্টার জন্য তাঁকে এই পুরস্কার দেওয়া হয়েছে জানিয়ে ফ্রি প্রেস আনলিমিটেড বলেছে, বাংলাদেশের সর্ববৃহৎ দৈনিক সংবাদপত্র প্রথম আলোতে অনুসন্ধানী প্রতিবেদক হিসেবে কাজ করেন রোজিনা ইসলাম। তিনি করোনাকালে দেশের স্বাস্থ্য খাতের অনিয়ম প্রকাশ্যে এনেছেন। এখন নিজের দেশে তাঁকে বিচারের মুখোমুখি হতে হচ্ছে, যেতে হচ্ছে হয়রানির মধ্য দিয়ে।

বিচারকমণ্ডলীতে ছিলেন নেদারল্যান্ডসের প্রখ্যাত টিভি সাংবাদিক ও তথ্যচিত্র নির্মাতা হেন্নাহ দ্রাইবার, পাকিস্তানে মুক্ত গণমাধ্যম প্রতিষ্ঠায় সোচ্চার ওয়াইস ইসলাম আলী এবং নেদারল্যান্ডসের অনুসন্ধানী সাংবাদিকদের সংগঠন ডাচ–ফ্লেমিস অ্যাসোসিয়েশন অব ইনভেস্টিগেটিভ জার্নালিস্টসের সাবেক পরিচালক তানজা ফন বেরগেন।

বিচারকমণ্ডলীর সবাই একমত হয়ে রোজিনা ইসলামকে সেরা অদম্য সাংবাদিক হিসেবে মনোনীত করেন। তাঁরা বলেন, ‘মহামারির এই সংকটময় সময়ে অনিয়ম বের করে আনতে সাংবাদিকের লড়াইয়ের সঙ্গে আমরা সংহতি প্রকাশ করছি। বাংলাদেশ সরকারের প্রতি রোজিনা ইসলামকে হয়রানি বন্ধ করার আহ্বান জানাচ্ছি।’

সাংবাদিক রোজিনা ইসলাম গত ১৭ মে পেশাগত দায়িত্ব পালন করতে স্বাস্থ্য মন্ত্রণালয়ে গিয়ে হেনস্তার শিকার হন। তাঁকে প্রায় ছয় ঘণ্টা আটকে রাখা হয়। পরে তাঁকে শতবছরের পুরোনো ‘অফিশিয়াল সিক্রেটস অ্যাক্টে’ গ্রেপ্তার দেখানো হয়।

রোজিনা ইসলাম পাঁচ দিন পর জামিনে মুক্ত হন। তাঁকে নির্যাতন ও মামলার প্রতিবাদে দেশে-বিদেশে কর্মসূচি পালিত হয়। বিভিন্ন দেশীয় ও বৈশ্বিক সংস্থা প্রতিবাদ জানায়। জামিনে মুক্তি পেলেও এখনো রোজিনার মামলা তুলে নেওয়া হয়নি। পাসপোর্ট, মুঠোফোন ও পেশাগত দায়িত্ব পালনের জন্য সচিবালয়ে প্রবেশের অ্যাক্রেডিটেশন কার্ডও ফেরত পাননি তিনি।

মনোনীত ছিলেন তিনজন
‘মোস্ট রেজিলিয়েন্ট জার্নালিস্ট’ শ্রেণিতে পুরস্কারের জন্য রোজিনা ইসলাম ছাড়াও এ বছর মরক্কোর সাংবাদিক ওমর রাদি ও বেলারুশের সাংবাদিক রামান ভাসিউকোভিচ মনোনীত হয়েছিলেন।

ওমর রাদি এক দশকের বেশি সময় ধরে মরক্কোয় অনুসন্ধানী সাংবাদিকতা করছেন। তিনি দেশটির সামাজিক ও অর্থনৈতিক অসাম্যের পেছনের অনেক কেলেঙ্কারি ফাঁস করেছেন। ফ্রি প্রেস আনলিমিটেড বলছে, দীর্ঘদিন হয়রানির পর তাঁকে প্রহসনের বিচারের মাধ্যমে ছয় বছরের কারাদণ্ড দেওয়া হয়েছে। তিনি এখন কারাবন্দী।

বেলারুশের ‘কারেন্ট টাইম’ টেলিভিশনের সাংবাদিক রামান ভাসিউকোভিচ গত বছর দেশটির নির্বাচনে জালিয়াতির বিরুদ্ধে প্রতিবাদের খবর প্রচার করেছিলেন। পরে তাঁকে গ্রেপ্তার ও নির্যাতন করা হয়। দেশ ছাড়তে বাধ্য হন তিনি। কিন্তু তারপরও নিজের কাজ থেকে সরে যাননি রামান ভাসিউকোভিচ। তিনি ইউক্রেনে অবস্থান করে বেলারুশের প্রেসিডেন্ট আলেকজান্ডার লুকাশেঙ্কো সরকারের দুর্নীতির খবর প্রচার করে আসছেন।
বছরের সেরা নবাগত শ্রেণিতে পুরস্কার পাওয়া ভাট বুরহান ভারতের নয়াদিল্লিভিত্তিক ২২ বছর বয়সী একজন ফ্রিল্যান্স সাংবাদিক। তিনি প্রামাণ্যচিত্রে কাশ্মীরে তৃতীয় লিঙ্গের জনগোষ্ঠীর দুর্দশা, ভারতের কৃষক আন্দোলন, নয়াদিল্লিতে করোনায় মৃতদের সৎকারে যুক্ত মানুষের অবস্থা ও শহরটিতে আশ্রিতদের করোনার টিকা না পাওয়ার বিষয়গুলো তুলে ধরেছেন।


রোজিনা ইসলামের পাওয়া পুরস্কারের অর্থমূল্য সাড়ে ৭ হাজার ইউরো, যা বাংলাদেশি মুদ্রায় প্রায় সাড়ে ৭ লাখ টাকার সমান। সাংবাদিক ভাট বুরহান পেয়েছেন দেড় হাজার ইউরোর (বাংলাদেশি মুদ্রায় প্রায় দেড় লাখ টাকা) বৃত্তি।

পুরস্কার ঘোষণায় ফ্রি প্রেস আনলিমিটেড আরও বলেছে, ‘এই পুরস্কারের জন্য আমাদের কাছে বিশ্বের বিভিন্ন প্রান্ত থেকে অনেক সাহসী ও মেধাবী সাংবাদিকের নাম প্রস্তাব করা হয়েছিল। আমরা দেখেছি, স্বাধীন সংবাদমাধ্যম ও সাংবাদিকদের ওপর অবিশ্বাস্য রকমের চাপ রয়েছে। বিশ্বব্যাপী সাংবাদিকেরা নানা ধরনের চাপ মোকাবিলা করে তাঁদের পেশার প্রতি যে একাগ্রতা দেখিয়ে চলেছেন, তাতে আমরা অভিভূত।’

‘রোজিনা দমে যাননি’
পুরস্কারের জন্য মনোনয়নের ক্ষেত্রে ফ্রি প্রেস আনলিমিটেডের ওয়েবসাইটে রোজিনা ইসলাম সম্পর্কে বলা হয়েছে, তিনি নানা হুমকি ও হয়রানির মধ্যেও ক্ষমতার অপব্যবহার ও সরকারি দুর্নীতি তুলে ধরার ক্ষেত্রে দমে যাননি।

এক দশকের বেশি সময় ধরে প্রথম আলোতে কর্মরত রোজিনা ইসলাম স্বাস্থ্য খাত ছাড়াও স্বরাষ্ট্র, জনপ্রশাসন, মুক্তিযুদ্ধবিষয়ক মন্ত্রণালয়, অপরাধ, পরিবেশ, বিদ্যুৎ ও জ্বালানি, দুর্নীতিসহ বিভিন্ন বিষয়ে প্রতিবেদন করেছেন।

ফ্রি প্রেস অ্যাওয়ার্ড পাওয়ার আগেও রোজিনা ইসলাম সাংবাদিকতায় অনেক পুরস্কার পেয়েছেন। এ বছর ঢাকা রিপোর্টার্স ইউনিটির (ডিআরইউ) স্বাস্থ্য খাতে সেরা প্রতিবেদনের পুরস্কার পান তিনি। এই প্রতিবেদন ছিল স্বাস্থ্য খাতে নিয়োগে দুর্নীতিসংক্রান্ত। ২০১১, ২০১৪ ও ২০১৭ সালেও ডিআরইউ পুরস্কার পেয়েছেন তিনি।

রোজিনা ইসলাম ইউনেসকো অ্যাওয়ার্ড (২০১১), ইউনেসকো ক্লাব জার্নালিস্টস অ্যাওয়ার্ড (২০০৬), কানাডিয়ান অ্যাওয়ার্ডস ফর এক্সিলেন্স ইন বাংলাদেশি জার্নালিজম (২০১১), প্রথম আলো সেরা প্রতিবেদক পুরস্কার (২০১৩ ও ২০১৪) ও ট্রান্সপারেন্সি ইন্টারন্যাশনাল বাংলাদেশের (টিআইবি) সেরা অনুসন্ধানী সাংবাদিকতা পুরস্কারসহ (২০১৫) বিভিন্ন পুরস্কার পেয়েছেন।

ফ্রি প্রেস অ্যাওয়ার্ড প্রদান অনুষ্ঠানে রোজিনা ইসলাম বলেন, ‘পরিস্থিতি অবশ্যই বদলাবে, মানুষের ভালোর জন্য বদলাতে হবে। আমি সেই দিনের অপেক্ষায়।’
0 Share Comment
Dhaka Division
03 November 2021, 21:09

বেসরকারি শিক্ষা প্রতিষ্ঠানের (স্কুল ও
কলেজ) জনবল কাঠামো ও এমপিও নীতিমালা-২০২১ এবং জাতীয় বিশ্ববিদ্যালয়ের বিধি
মোতাবেক রোভারপল্লী ডিগ্রি কলেজে কয়েকটি পদে নিয়োগ দেওয়া হবে।


পদের বিবরণঃ 


১। অধ্যক্ষ - ১ জন 

২। উপাধ্যক্ষ - ১ জন

৩। নিরাপত্তা কর্মী - ১ জন

৪। পরিচ্ছন্নতা কর্মী - ১ জন

৫। অফিস সহায়ক - ২ জন


আগ্রহী প্রার্থীদের ২০ নভেম্বরের মধ্যে
সরাসরি অথবা ডাকযোগে সভাপতি বরাবর প্রয়োজনীয় কাগজপত্রসহ আবেদন প্রেরণ
করতে হবে। আবেদনপত্রের সাথে সভাপতি বরাবর মিডল্যান্ড ব্যাংক লি: মির্জাপুর
বাজার শাখা, গাজীপুর এর অনুকুলে অধ্যক্ষ ও উপাধ্যক্ষ পদের জন্য ১০০০ (এক
হাজার) টাকা ও অন্যান্য পদের জন্য ৩০০ (তিনশত) টাকা করে ব্যাংক
ড্রাফট/পে-অর্ডার জমা দিতে হবে।


যোগাযোগঃ- সভাপতি, রোভারপল্লী ডিগ্রি কলেজ, বাহাদুরপুর রোভারপল্লী, গাজীপুর মহানগর, গাজীপুর-১৭০৩।


মোবাইল:-০১৩০৯-১০৯০৩৪, ০১৭২০-২৫৭৬০৩।


সূত্র:- দৈনিক ইত্তেফাক


0 Share Comment
Dhaka Division
03 November 2021, 21:09

শীর্ষস্থান হারালেন সাকিব

শীর্ষস্থান হারালেন সাকিব


আইসিসি প্রকাশিত সর্বশেষ র‌্যাঙ্কিংয়ে এক থেকে দুই নম্বরে নেমে গেছেন সাকিব আল হাসান। ২৮২ রেটিং পয়েন্ট নিয়ে টি-টোয়েন্টি ক্রিকেটে এক নম্বর অলরাউন্ডার ছিলেন সাকিব। সদ্য প্রকাশিত রাঙ্কিংয়ে ২৭১ পয়েন্ট নিয়ে শীর্ষ অবস্থানে আফগানিস্তানের অলরাউন্ডার মোহাম্মদ নবী। সাকিবের রেটিং পয়েন্টও ২৭১। কিন্তু ভগ্নাংশের হিসেবে এগিয়ে আফগান অধিনায়ক।

আফগান অলরাউন্ডার এই বিশ্বকাপে সুপার টুয়েলভে দারুণ পারফর্ম্যান্স তাকে শীর্ষ অবস্থানে নিয়ে গিয়েছে। পাকিস্তানের বিপক্ষে দলের ব্যাটিং বিপর্যয়ে ৩৫ রানের দারুণ ইনিংস খেলেন এবং বল হাতে পাকিস্তানের মারকুটে ব্যাটার ফাখার জামানের উইকেট নেন। নামিবিয়ার সঙ্গেও ব্যাট হাতে ১৭ বলে দুর্দান্ত ৩২ রান করেন এই ডানহাতি ব্যাটার।

অন্যদিকে বিশ্বকাপের প্রথম তিন ম্যাচে ব্যাট-বল হাতে দারুণ পারফর্ম্যান্স করেছে সাকিব। সুপার টুয়েলভে পারফর্ম্যান্স তেমন আশানুরূপ হয়নি। বিশ্বকাপের দ্বিতীয় পর্বে ওয়েস্ট ইন্ডিজের বিপক্ষে চোট পেয়ে বিশ্বকাপ থেকেই ছিটকে পড়েন এই টাইগার অল রাউন্ডার।
0 Share Comment
Dhaka Division
03 November 2021, 21:08

ইসলামি আরবি বিশ্ববিদ্যালয় ও সর্বশেষ সরকারি বিধি মোতাবেক রোকেয়া ফাযিল (ডিগ্রি) মাদরাসায় একজন অধ্যক্ষ নিয়োগ দেওয়া হবে।


আগ্রহী প্রার্থীদের বিজ্ঞপ্তি প্রকাশের ১৫
দিনের মধ্যে প্রয়োজনীয় কাগজপত্র, পাসপোর্ট সাইজের দুই কপি ছবি ও ১ টাকার
অফেরতযোগ্য ব্যাংক ড্রাফ্ট/পোস্টাল অর্ডারসহ সভাপতি বরাবর আবেদন করতে
হবে। 


যোগাযোগ : মোঃ সরওয়ার হোসেন (ভারপ্রাপ্ত অধ্যক্ষ), রোকেয়া ফাযিল (ডিগ্রি) মাদরাসা, করটিয়া, টাঙ্গাইল।


0 Share Comment
Dhaka Division
03 November 2021, 21:07

এবার আগামী শুক্রবার একই দিনে ১৯টি
প্রতিষ্ঠানের চাকরির নিয়োগ পরীক্ষা পড়েছে। শুক্রবার সকাল, দুপুর ও বিকেলে
নেওয়া হবে এসব পরীক্ষা। এর মধ্যে কয়েকটি প্রতিষ্ঠানের পরীক্ষা অনুষ্ঠিত হবে
একই সময়ে। একই দিনে একাধিক প্রতিষ্ঠানের নিয়োগ পরীক্ষা পড়ায় বিপাকে পড়েছেন
চাকরিপ্রার্থীরা।


এ বিষয়ে বাংলাদেশ সরকারি কর্ম
কমিশনের (পিএসসি) একজন সাবেক চেয়ারম্যান বলেন, চাকরির পরীক্ষার নামে যা
হচ্ছে, তা প্রহসন। এভাবে একই দিনে এত পরীক্ষা নেওয়া কোনোভাবেই যুক্তিযুক্ত
নয়। সরকারকে অবিলম্বে এটি বন্ধের ব্যবস্থা নিতে আহ্বান জানান তিনি।


তবে পরীক্ষার্থীদের অসুবিধার কথা বিবেচনা
করে বাংলাদেশ সরকারি কর্ম কমিশন (পিএসসি) শুক্র ও শনিবার নতুন করে কোন
নিয়োগ পরীক্ষা রাখে নি।  


আগামী শুক্রবার যে ১৯টি প্রতিষ্ঠান,
মন্ত্রণালয় ও সংস্থার নিয়োগ পরীক্ষার সূচি ঠিক হয়েছে, তা হলো স্থানীয় সরকার
বিভাগ, কর কমিশনারের কার্যালয়, কর অঞ্চল-১৪, বাংলাদেশ পরিসংখ্যান ব্যুরো,
অর্থনৈতিক সম্পর্ক বিভাগ, জাতীয় নিরাপত্তা গোয়েন্দা, বাংলাদেশ লোকপ্রশাসন
প্রশিক্ষণ কেন্দ্র, অ্যাটর্নি জেনারেলের কার্যালয়, শ্রম আদালত সিলেট,
বাংলাদেশ ইনস্টিটিউট অব ম্যানেজমেন্ট, খাদ্য অধিদপ্তর, বিমান বাংলাদেশ
এয়ারলাইনস, বাংলাদেশ জাতীয় সংসদ সচিবালয়, সড়ক পরিবহন ও মহাসড়ক বিভাগ, ঢাকা
পাওয়ার ডিস্ট্রিবিউশন কোম্পানি লিমিটেড, সমন্বিত সাতটি ব্যাংক ও আর্থিক
প্রতিষ্ঠান, পল্লী উন্নয়ন একাডেমি বগুড়া, বাংলাদেশ বেসামরিক বিমান চলাচল
কর্তৃপক্ষ (বেবিচক), বাংলাদেশ মৎস্য উন্নয়ন করপোরেশন ও শিক্ষা প্রকৌশল
অধিদপ্তর।


খাদ্য অধিদপ্তরে পরীক্ষা হবে আটটি বিভাগীয়
শহর ঢাকা, চট্টগ্রাম, রাজশাহী, খুলনা, বরিশাল, সিলেট, রংপুর ও ময়মনসিংহে;
শ্রম আদালত সিলেটের পরীক্ষা হবে সিলেটে এবং পল্লী উন্নয়ন একাডেমি বগুড়ার
নিয়োগ পরীক্ষা হবে বগুড়ায়। বাকি সব প্রতিষ্ঠানের পরীক্ষা হবে ঢাকায়। সড়ক
পরিবহন ও মহাসড়ক বিভাগের তিনটি পদের ব্যবহারিক বাদে বাকি প্রতিষ্ঠানগুলোর
লিখিত পরীক্ষা অনুষ্ঠিত হবে।


প্রতিষ্ঠানগুলোর ওয়েবসাইট থেকে পাওয়া সূচি
অনুযায়ী, অর্থনৈতিক সম্পর্ক বিভাগের পরীক্ষা শুরু হবে সাড়ে আটটায়; বাংলাদেশ
পরিসংখ্যান ব্যুরো, জাতীয় নিরাপত্তা গোয়েন্দা, বাংলাদেশ লোকপ্রশাসন
প্রশিক্ষণকেন্দ্র, অ্যাটর্নি জেনারেলের কার্যালয়, শ্রম আদালত সিলেট,
বাংলাদেশ ইনস্টিটিউট অব ম্যানেজমেন্ট, খাদ্য অধিদপ্তর, বিমান বাংলাদেশ
এয়ারলাইনস, বাংলাদেশ জাতীয় সংসদ সচিবালয় ও সড়ক পরিবহন এবং মহাসড়ক বিভাগের
পরীক্ষা শুরু হবে সকাল ১০টায়; ঢাকা পাওয়ার ডিস্ট্রিবিউশন কোম্পানি
লিমিটেডের পরীক্ষা শুরু হবে সকাল সাড়ে ১০টায়; কর কমিশনারের কার্যালয়, কর
অঞ্চল-১৪ ও স্থানীয় সরকার বিভাগের পরীক্ষা বেলা ১১টায়; বাংলাদেশ মৎস্য
উন্নয়ন করপোরেশনের পরীক্ষা শুরু হবে বেলা আড়াইটায় এবং সমন্বিত সাতটি ব্যাংক
ও আর্থিক প্রতিষ্ঠান, পল্লী উন্নয়ন একাডেমি বগুড়া, বাংলাদেশ বেসামরিক
বিমান চলাচল কর্তৃপক্ষ (বেবিচক) ও শিক্ষা প্রকৌশল অধিদপ্তরের পরীক্ষা শুরু
হবে বেলা তিনটায়।


একই দিনে ১৯টি প্রতিষ্ঠানের চাকরির পরীক্ষা
পড়ায় কোনো কোনো পরীক্ষার্থীর দু-তিনটি পরীক্ষা পড়েছে শুক্রবার। নাম প্রকাশ
না করার শর্তে এক পরীক্ষার্থী বলেন, শুক্রবার বিকেলে তাঁর দুটি চাকরির
পরীক্ষা পড়েছে একই সময়ে। একটি প্রতিষ্ঠানের প্রিলিমিনারি পরীক্ষায় উত্তীর্ণ
হয়েছেন। সেটির লিখিত পরীক্ষা শুক্রবার বিকেলে। ঠিক ওই সময়ে আরেকটি চাকরির
পরীক্ষা। একই সময়ে পড়ায় পরীক্ষা দেওয়ার আগেই একটি থেকে বাদ পড়তে হচ্ছে
তাঁকে।


ওই পরীক্ষার্থী বলেন, ‘প্রাথমিক পরীক্ষায়
নির্বাচিত হয়েও যদি কর্তৃপক্ষের সমন্বয়হীনতার কারণে পরবর্তী ধাপের পরীক্ষায়
অংশ নিতে না পারি, এর চেয়ে কষ্টের আর কী হতে পারে। বেকারদের সঙ্গে এ ধরনের
তামাশা বন্ধ করা হোক।


উল্লেখ্য, করোনার কারণে প্রায় দেড় বছর বন্ধ
থাকার পর গত সেপ্টেম্বর থেকে বিভিন্ন সরকারি প্রতিষ্ঠান ও মন্ত্রণালয়
চাকরির পরীক্ষা নেওয়া শুরু করে। ফলে দুই মাস ধরে প্রতি শুক্রবার গড়ে ১৫টি
প্রতিষ্ঠানের চাকরি পরীক্ষা পড়ছে।


0 Share Comment
National/International News Group
03 November 2021, 13:02

এমএফএস প্রতিষ্ঠানগুলো কখনই ব্যাংক নয়

এমএফএস প্রতিষ্ঠানগুলো কখনই ব্যাংক নয়
ব্র্যাক ব্যাংকের অঙ্গপ্রতিষ্ঠান ‘বিকাশ’, ডাচ্-বাংলা ব্যাংকের ‘রকেট’, ‘নগদ’সহ বর্তমানে দেশে মোবাইল ফাইন্যান্সিয়াল সার্ভিসেস বা এমএফএস কার্যক্রম পরিচালনা করছে ১৪টি প্রতিষ্ঠান। জুন শেষে প্রায় ১০ কোটি এমএফএস হিসাবধারীর স্থিতির পরিমাণ ছিল ৯ হাজার ২০০ কোটি টাকা। এ স্থিতির প্রায় ৮৫ শতাংশই বৃহৎ এমএফএস প্রতিষ্ঠান বিকাশের নিয়ন্ত্রণে। বর্তমানে বিকাশের নিবন্ধিত গ্রাহকের সংখ্যা পাঁচ কোটিরও বেশি। তবে এমএফএস প্রতিষ্ঠানের হিসাবে এত পরিমাণ অর্থ জমা থাকা মোটেই ঠিক নয় বলে মনে করেন বাংলাদেশ ব্যাংকের সাবেক গভর্নর ড. সালেহউদ্দিন আহমেদ। তিনি বলেন, এমএফএস প্রতিষ্ঠানগুলো কখনই ব্যাংক নয়। এসব প্রতিষ্ঠান কেবল গ্রাহকের অর্থ স্থানান্তর ও পরিশোধের মাধ্যম হিসেবে ব্যবহূত হচ্ছে। এত পরিমাণ অর্থ এমএফএস হিসাবে জমা থাকাটি আর্থিক রীতিনীতির বিরোধী।

ড. সালেহউদ্দিন আহমেদ বলেন, এমএফএস প্রতিষ্ঠানের ওপর কেন্দ্রীয় ব্যাংকের সরাসরি নিয়ন্ত্রণ নেই। ব্যাংকে থাকা অদাবীকৃত আমানত কেন্দ্রীয় ব্যাংকে জমা দিতে হয়। এ ধরনের প্রতিষ্ঠানে অব্যবহূত হিসাবে জমা থাকা অর্থের কী হবে, সেটি সুস্পষ্ট নয়। বাংলাদেশ ব্যাংকের দায়িত্ব হবে এমএফএস প্রতিষ্ঠানের পোর্টফোলিওর দিকে নজর দেয়া। দীর্ঘদিন ক্যাশ আউট হচ্ছে না, এমন হিসাবগুলো চিহ্নিত করে গ্রাহকদের অর্থ উত্তোলনের তাগিদ দিতে হবে। এতেও কাজ না হলে অব্যবহূত হিসাবে জমাকৃত অর্থ কেন্দ্রীয় ব্যাংকের নিয়ন্ত্রণে নেয়া দরকার। এমএফএস প্রতিষ্ঠানে বিপুল অংকের অর্থ কেন্দ্রীভূত হয়ে গেলে মুদ্রানীতির লক্ষ্য বাস্তবায়নও বাধাগ্রস্ত হবে।
তবে সরকারি-বেসরকারি উদ্যোগে গড়ে ওঠা ‘নগদ’ এখনো কেন্দ্রীয় ব্যাংকের পূর্ণ অনুমোদন পায়নি। চলতি বছরের জুন শেষে এমএফএস প্রতিষ্ঠানগুলোর নিবন্ধিত গ্রাহকের সংখ্যা দাঁড়িয়েছে ৯ কোটি ৯৭ লাখ। তবে বিপুল অংকের এ গ্রাহকের অর্ধেক হিসাবও সক্রিয় নেই। জুন শেষে সক্রিয় এমএফএস হিসাবধারীর পরিমাণ ছিল ৪ কোটি ৯ লাখ। সক্রিয় ও নিষ্ক্রিয় উভয় শ্রেণীর গ্রাহকেরই ব্যাংক হিসাবে ই-মানির স্থিতি রয়েছে। জুন শেষে প্রায় ১০ কোটি এমএফএস হিসাবধারীর স্থিতির পরিমাণ ছিল ৯ হাজার ২০০ কোটি টাকা। এ স্থিতির প্রায় ৮৫ শতাংশই বৃহৎ এমএফএস প্রতিষ্ঠান বিকাশের নিয়ন্ত্রণে। বর্তমানে বিকাশের নিবন্ধিত গ্রাহকের সংখ্যা পাঁচ কোটিরও বেশি।

বিকাশের হাতে থাকা গ্রাহকদের সব অর্থই নিরাপদ বলে জানিয়েছেন প্রতিষ্ঠানটির প্রধান নির্বাহী কর্মকর্তা কামাল কাদীর। তিনি বলেন, সরকারি নীতিমালা অনুযায়ী আমাদের কাছে থাকা গ্রাহকদের অর্থের ২৫ শতাংশ ট্রেজারি বিল-বন্ডে বিনিয়োগ করার কথা। আমরা সরকারি নির্দেশনার চেয়েও অনেক বেশি অর্থ ট্রেজারি বিল-বন্ডে বিনিয়োগ করেছি। বর্তমানে বিকাশের হাতে থাকা অর্থের ৩৫ শতাংশ ট্রেজারি বিল-বন্ড কেনার মাধ্যমে বিনিয়োগ করা হয়েছে। বাকি অর্থ রাষ্ট্রায়ত্ত সোনালী ব্যাংকসহ বিভিন্ন ব্যাংকে মেয়াদি আমানত হিসাবে জমা আছে। আমাদের কাছে থাকা গ্রাহকদের সব অর্থই নিরাপদ। অন্য প্রতিষ্ঠানগুলো নীতিমালা অনুযায়ী বিনিয়োগ করছে কিনা, সেটি দেখা দরকার।

মোবাইল ফাইন্যান্সিয়াল সার্ভিসেস বা এমএফএস সেবার কার্যক্রম শুরু হয়েছিল সহজে অর্থ স্থানান্তরের মাধ্যম হিসেবে। তবে এক দশকের মাথায় এসে দেখা যাচ্ছে, এতে প্রচুর পরিমাণে অর্থ অব্যবহূত থেকে যাচ্ছে। বর্তমানে এমএফএস হিসাবগুলোয় যে পরিমাণ অর্থ জমা থেকে যাচ্ছে, তা দেশের মাঝারি মানের একটি ব্যাংকের সমান। চলতি বছরের জুন শেষে মোবাইল ব্যাংকিং হিসাবে থাকা ই-মানির স্থিতির পরিমাণ দাঁড়ায় ৯ হাজার ২০০ কোটি টাকায়। বর্তমানে তা ১০ হাজার কোটি টাকার কাছাকাছি বলে সংশ্লিষ্টরা জানিয়েছেন। যেখানে গত বছরের আগস্টেও এর পরিমাণ ছিল প্রায় সাড়ে ৫ হাজার কোটি টাকা।

এমএফএস হিসাবের সংখ্যা বৃদ্ধির পাশাপাশি অব্যবহূত অর্থ বা জমার পরিমাণ বাড়ায় প্রতিনিয়ত ই-মানির স্থিতি বাড়ছে বলে মনে করছেন সংশ্লিষ্টরা। অন্যদিকে ই-মানির এ দ্রুত প্রবৃদ্ধিকে অস্বাভাবিক হিসেবে দেখছে বাংলাদেশ ব্যাংক। এমএফএস সেবাদাতা প্রতিষ্ঠানগুলোয় জমা থেকে যাওয়া অর্থের যথাযথ ব্যবহার নিয়েও উদ্বেগ রয়েছে কেন্দ্রীয় ব্যাংকের। অন্যদিকে বিশেষজ্ঞদের আশঙ্কা, এমএফএস সেবাদাতা বড় কোনো প্রতিষ্ঠান বিপর্যস্ত হলে দেশের বহু মানুষ ক্ষতিগ্রস্ত হবে। শঙ্কা রয়েছে আর্থিক খাতের শৃঙ্খলা নষ্ট হওয়ারও।

ডাচ্-বাংলা ব্যাংকের আর্থিক সেবা রকেটের মাধ্যমে ২০১১ সালে দেশে মোবাইল ব্যাংকিংয়ের যাত্রা। গ্রাহকদের হাতে থাকা মোবাইলই অর্থ লেনদেনের মাধ্যম হয়ে ওঠায় দ্রুততম সময়ে জনপ্রিয়তা পেয়েছে সেবাটি। এক পর্যায়ে ব্যাংক খাতের প্রতিষ্ঠানগুলোও সেবাটির বাজার দখলে তীব্র প্রতিযোগিতায় নেমে পড়ে। তবে এসব প্রতিষ্ঠানের মধ্যে এক্ষেত্রে সাফল্য পেয়েছে অল্প কয়েকটি।


এমএফএস সেবা পরিচালনার জন্য কেন্দ্রীয় ব্যাংক থেকে অনুমোদন নিয়েছিল দুই ডজনেরও বেশি ব্যাংক। অনেক প্রতিষ্ঠানই ব্যবসায়িক ব্যর্থতায় সেবাটি বন্ধ করে দিয়েছে। বর্তমানে ১৪টি প্রতিষ্ঠান এমএফএস সেবা দিলেও বাজারের ৯৮ শতাংশই নিয়ন্ত্রণ করছে পাঁচটি প্রতিষ্ঠান। শুরুতে ক্যাশ ইন, ক্যাশ আউটের পাশাপাশি ব্যক্তি থেকে ব্যক্তির লেনদেনে সীমাবদ্ধ ছিল এমএফএসের কার্যক্রম। পরবর্তী সময়ে শিক্ষার্থীদের উপবৃত্তি পরিশোধ, বেতন পরিশোধ, ইউটিলিটি বিল, মার্চেন্ট পেমেন্ট, রেমিট্যান্স আহরণের মতো বিষয়গুলোও এমএফএস সেবায় যুক্ত হয়।


দ্রুততম সময়ে দেশের প্রত্যন্ত অঞ্চলে ছড়িয়ে পড়া মোবাইল ব্যাংকিংয়ের মাধ্যমে বর্তমানে প্রতিদিন ২ হাজার কোটি টাকার বেশি লেনদেন হচ্ছে। চলতি বছরের জুন মাসে মোবাইল ব্যাংকিংয়ে মোট লেনদেন হয়েছে ৩১ কোটি ৯৮ লাখ ২০ হাজার ৭৭২টি। এসব লেনদেনের মাধ্যমে মোট ৬২ হাজার ৯৯৩ কোটি টাকা হাতবদল হয়েছে। এক্ষেত্রে প্রতিদিন গড়ে ১ কোটির বেশি লেনদেন হয়েছে। আর প্রতিদিন হাতবদল হয়েছে গড়ে ২ হাজার ৯৯ কোটি টাকা। জুনে মোবাইল ব্যাংকিংয়ের মাধ্যমে দেশে রেমিট্যান্স এসেছে ১৭৬ কোটি টাকা। ওই মাসে ১৮ হাজার ৩১৬ কোটি টাকার ক্যাশ ইন, ১৫ হাজার ৭৪১ কোটি টাকার ক্যাশ আউট এবং ১৮ হাজার ৮২৮ কোটি টাকা ব্যক্তি থেকে ব্যক্তি লেনদেন হয়েছে। এছাড়া মোবাইল ব্যাংকিংয়ের মাধ্যমে জুনে ২ হাজার ২৪৩ কোটি টাকার বেতন-ভাতা বিতরণ, ১ হাজার ২৪৩ কোটি টাকার ইউটিলিটি বিল পরিশোধ, ৩ হাজার ২৯৩ কোটি টাকার মার্চেন্ট পেমেন্ট, ১ হাজার ২২৫ কোটি টাকার সরকারি মাশুল গ্রহণ এবং ১ হাজার ৯২৫ কোটি টাকার অন্যান্য লেনদেন হয়েছে।


বাংলাদেশ ব্যাংকের পেমেন্ট সিস্টেমস বিভাগের মহাব্যবস্থাপক মো. মেজবাউল হক বলেন, এমএফএস সেবায় প্রতিনিয়ত গ্রাহক সংখ্যা বাড়ছে। প্রত্যেক গ্রাহকের হিসাবেই কিছু না কিছু টাকা জমা থাকে। এ কারণেই এমএফএস প্রতিষ্ঠানগুলোর হাতে ই-মানির স্থিতি বাড়ছে। প্রতিষ্ঠানগুলোর নিয়ন্ত্রণে থাকা অর্থের যথাযথ ব্যবহার নিশ্চিতে আমাদের আন্তরিকতার ঘাটতি নেই। এক্ষেত্রে বাংলাদেশ ব্যাংকের পক্ষ থেকে একটি নীতিমালাও জারি করা হয়েছে।


তবে কেন্দ্রীয় ব্যাংকের একাধিক কর্মকর্তার ভাষ্যমতে, মোবাইল ব্যাংকিং সেবার ব্যবহার করে যে ধরনের লেনদেন হয়, তাতে এত পরিমাণ অর্থ জমা থাকার কথা নয়। এমএফএস প্রতিষ্ঠানগুলোর হাতে ১০ হাজার কোটি টাকার স্থিতি থাকা মোটেই নিরাপদ নয়। সা¤প্রতিক সময়ে ই-কমার্স ঘিরে বড় ধরনের বিতর্ক, অর্থ লুণ্ঠন ও আস্থার ঘাটতি তৈরি হয়েছে। এ অবস্থায় কোনো এমএফএস প্রতিষ্ঠান বন্ধ হয়ে গেলে এবং ওই প্রতিষ্ঠানের হাতে থাকা অর্থের যথাযথ ব্যবহার নিশ্চিত করা সম্ভব না হলে, দেশের আর্থিক খাত নিয়েও বড় ধরনের অবিশ্বাস ও অনাস্থা তৈরি হবে।


যদিও ব্যাংকে টাকা রাখার চেয়ে এমএফএস প্রতিষ্ঠানের হিসাবে টাকা রাখা বেশি নিরাপদ বলে মনে করছেন নগদের ব্যবস্থাপনা পরিচালক (এমডি) তানভীর আহমেদ মিশুক। তিনি বলেন, গ্রাহকদের কাছ থেকে আমানত নিয়ে ব্যাংক ঋণ বিতরণ করে। এক্ষেত্রে বিতরণকৃত ঋণটি খেলাপি হওয়ার ঝুঁকিতে থাকে। এমএফএস প্রতিষ্ঠান গ্রাহকদের ঋণ দেয় না। গ্রাহকদের হিসাবে জমা থাকা অর্থ আমরা বিভিন্ন ব্যাংকে মেয়াদি আমানত হিসাবে জমা রাখছি। ব্যাংকের কাছ থেকে পাওয়া মুনাফার অর্থ আমরা গ্রাহকদের হিসাবে প্রতি মাসে জমা করে দিই। সরকারি বিল-বন্ডে সুদের হার খুবই কম। এজন্য নগদ ব্যাংকে মেয়াদি আমানত হিসাবে টাকা জমা রাখাকে অগ্রাধিকার দিচ্ছে।
0 Share Comment
National/International News Group
03 November 2021, 13:00

কালীগঞ্জে খেজুরের রস সংগ্রহের প্রস্তুতি শুরু গাছীদের

কালীগঞ্জে খেজুরের রস সংগ্রহের প্রস্তুতি শুরু গাছীদের
ভোর রাতের কুয়াশা জানান দিচ্ছে শীতের আগমনী বার্তা। শীতের সঙ্গে জড়িয়ে আছে গ্রামবাংলার ঐতিহ্যবাহী খেজুর রস। ঝিনাইদহ জেলার কালীগঞ্জ উপজেলার প্রতিটি গ্রামে গ্রামে খেজুর রস সংগ্রহের জন্য গাছীরা খেজুরগাছ কাটার কাজে এখন ব্যস্ত সময় পার করছেন। আর কিছুদিনের মধ্যেই গাছ থেকে রস সংগ্রহের পর্ব শুরু হবে।আর সে সময় গ্রামবাংলার গৌরব আর ঐতিহ্যের প্রতীক মধুবৃক্ষকে ঘিরে গ্রামীণ জনপদে শুরু হবে এক উৎসবমুখর পরিবেশ। মধুবৃক্ষ থেকে গাছিরা সংগ্রহ করবে সুমিষ্টি খেজুরের রস। সেই খেজুরের রস আগুনে জ্বাল দিয়ে তৈরি হবে লোভনীয় গুড় ও পাটালি। রস জ্বালিয়ে ভেজানো পিঠা ও পায়েস খাওয়ার ধুম পড়বে প্রতিটি গ্রামীণ জনপদে। সৃষ্টি হবে গ্রামবাংলায় এক নতুন আমেজের।খেজুর রস হলো খেজুর গাছ থেকে সংগ্রহকৃত রস। সাধারণত মাটির হাড়ি দিয়ে খেজুরের রস সংগ্রহ করা হয়। তবে বর্তমানে অনেক ক্ষেত্রে মাটির বদলে প্লাস্টিক ভাড় দিয়েও সংগ্রহ করা হয়। খেজুরের রস দিয়ে ফিরনি, পায়েস এবং খেজুরের রস থেকে উৎপন্ন গুড় দিয়ে ভাঁপা পিঠা এবং গাঢ় রস দিয়ে তৈরি করা হয় মুড়ি, চিড়া, খই ও চিতই পিঠাসহ হরেক রকম পিঠাপুলি। খেজুরের রস পান করলে শরীরের দুর্বলতা দূর হয়। এতে উচ্চ প্রাকৃতিক চিনি এবং অন্যান্য প্রাকৃতিক উপাদান রয়েছে। তবে অনেক ক্ষেত্রে খেজুরের রস পান করলে স্বাস্থ্য ঝুঁকিতেও পড়তে হয়। এক সময় কালীগঞ্জ উপজেলা খেজুরের রস, গুড় ও পাটালি উৎপাদনে প্রসিদ্ধ ছিল। দেশের বাইরেও এর বেশ কদর রয়েছে। অতীতে এখানকার খেজুর রসের যে যশ ছিল, বর্তমানে সে যশ দিনকে দিন হারিয়ে যাচ্ছে। গ্রামবাংলার সম্ভাবনাময় অর্থনৈতিক এ খাতে সরকারি কোনো পৃষ্ঠপোষকতা না থাকায় বর্তমানে আগের মতো রস গুড় উৎপাদন হয় না। ইতোমধ্যে শহরের লোকজন গ্রামের খেজুর গাছ কাটা গাছীদের সঙ্গে যোগাযোগ শুরু করেছেন। আবার অনেকে গাছীদের আগাম টাকা দিচ্ছেন ভালো গুড় ও পাটালি পাবার আশায়। আগাম টাকা পেয়ে অনেক গাছী রস সংগ্রহের উপকরণ তৈরি করছেন।আবার অনেক অনলাইন অর্গানিক ফুড ব্যবসায়ীরা সরাসরি গ্রামের গাছীদের সাথে যোগাযোগ করছেন নির্ভেজাল রস ও গুড়ের জন্য। গাছীদের নিকট থেকে সংগৃহীত এইসব রস ও গুড় অনলাইনের মাধ্যমে তারা দেশের বিভিন্ন স্থানে বিক্রি করে থাকে।
0 Share Comment
National/International News Group
03 November 2021, 12:59

অতিপ্রক্রিয়াজাত খাবারে স্বাস্থ্যঝুঁকি বাড়ছে

অতিপ্রক্রিয়াজাত খাবারে স্বাস্থ্যঝুঁকি বাড়ছে
সম্প্রতি ইউনিসেফ প্রকাশিত ফিড টু ফেল দ্য ক্রাইসিস অব চিলড্রেনস ডায়েটস ইন আরলি লাইফ; ২০২১ চাইল্ড নিউট্রিশন রিপোর্ট শীর্ষক প্রতিবেদনে অতিপ্রক্রিয়াজাত খাবার সম্পর্কে সতর্ক করা হয়েছে। সেখানে বলা হয়, প্রক্রিয়াজাত খাবারে পর্যাপ্ত পরিমাণে খনিজ, ভিটামিন, প্রোটিন, ফসফরাসসহ প্রয়োজনীয় খাদ্য উপাদানের ঘাটতি থাকে। এছাড়া এসব খাবারে থাকে অতিমাত্রায় রাসায়নিকের মিশ্রণ। ফলে শিশুদের জন্য তো বটেই, বড়দের জন্যও এসব খাবার ক্ষতির কারণ। এ ধরনের খাবার গ্রহণের কারণে সারাজীবনের শিশুরা স্বাস্থ্যঝুঁকির মধ্যে পড়ে।
বাংলাদেশের পাঁচ বছরের কম বয়সী শিশুদের মধ্যে অতিপ্রক্রিয়াজাত খাবার গ্রহণের মাত্রা বেশি। তাদের মধ্যে ১৫ শতাংশ শিশু কোমল পানীয়, ৫ শতাংশ এনার্জি ড্রিংক, ২৭ শতাংশ প্যাকেটজাত ফলের জুস ও প্রায় ৬০ শতাংশ শিশু আইসক্রিম গ্রহণ করে বলে বায়োরিসার্চ জার্নালে প্রকাশিত এক গবেষণায় উঠে এসেছে। জাতিসংঘের শিশু তহবিল (ইউনিসেফ) বলছে, অতিপ্রক্রিয়াজাত বা আল্ট্রা প্রসেসড খাবার ও কোমল পানীয় যেকোনো বয়সীদের জন্য ক্ষতিকর। এতে ক্যান্সার, গ্যাস্ট্রিক, হূদরোগসহ নানা ধরনের দীর্ঘমেয়াদি ও জটিল রোগের সৃষ্টি হয়। বিশেষ করে শিশুদের শারীরিক ও মানসিক বৃদ্ধিতে এসব খাবারের ভীষণ প্রভাব রয়েছে।
অতিপ্রক্রিয়াজাত খাবারের মধ্যে রয়েছে পাউরুটি, বনরুটি, চকোলেট, মিষ্টি জাতীয় খাবার ও কোমল পানীয়, সস, বোতলজাত ফলের রস, স্যান্ডউইচ, বার্গার, ইনস্ট্যান্ট নুডলস ও স্যুপ, চিনি এবং তেল ও চর্বি জাতীয় খাবার, প্যাকেটজাত রেডি মিট ও বিভিন্ন চিপসের মতো জাঙ্ক ফুড। এ ধরনের খাবার হজমে সমস্যা সৃষ্টি করে ও কিডনির ক্ষতি করে। এসব খাবারে থাকা অতিরিক্ত লবণ উচ্চ রক্তচাপ তৈরি করে। অতিরিক্ত তেল ও চর্বি দিয়ে তৈরি খাবার কোলেস্টেরলের মাত্রা বাড়িয়ে দেয়। এতে উচ্চ রক্তচাপ ও স্ট্রোকে আক্রান্ত হওয়ার আশঙ্কা বেড়ে যায়। বদহজম ও গ্যাস্ট্রিক হতে পারে।
অতিপ্রক্রিয়াজাত খাবার ও কোমল পানীয় গ্রহণের পরিমাণ দিন দিন বাড়ছে উল্লেখ করে ইউনিসেফ বলছে, এসব নিম্নমানের খাবার গ্রহণের ফলে শিশুরা খর্বাকৃতি, শীর্ণকায়, অনুপুষ্টির ঘাটতি
এবং অতিরিক্ত ওজন ও স্থূলতার মতো অপুষ্টিজনিত সমস্যার শিকার হচ্ছে। ক্রমবর্ধমান দারিদ্র্য, অসমতা, সংঘাত, জলবায়ু-সংক্রান্ত দুর্যোগ এবং কভিড-১৯ মহামারীর মতো জরুরি পরিস্থিতিতে এমনিতেই কম বয়সীদের পুষ্টি সংকট প্রকট হয়েছে। বিশেষ করে ছয় মাস থেকে দুই বছর বয়সীরা বেশি ঝুঁকিতে রয়েছে। এ সময় তারা অতিপ্রক্রিয়াজাত খাবারের কারণে দুর্বল হয়ে পড়ে। জীবনের এ সময়টিতে পর্যাপ্ত পুষ্টির অভাবে তাদের দ্রুতবর্ধনশীল শরীর ও মস্তিষ্ক ক্ষতির মধ্যে পড়ছে। ফলে
তাদের ভবিষ্যৎ কার্যক্রম প্রভাবিত হয়। নিম্নমানের খাদ্যাভ্যাসের কারণে তারা যে স্বাস্থ্যগত ক্ষতির মধ্যে পড়ে তা সারাজীবন বয়ে বেড়াতে হয়। শিশুর বৃদ্ধির জন্য শাকসবজি, ফল, ডিম, মাছ ও মাংসে বিদ্যমান প্রয়োজনীয় পুষ্টি পর্যাপ্ত পরিমাণে না খাওয়ানো হলে মস্তিষ্কের দুর্বল বিকাশ, দুর্বল শিক্ষা ফলাফল, কম রোগ প্রতিরোধ ক্ষমতা, অধিকমাত্রায় সংক্রমণ এবং সম্ভাব্য মৃত্যুর ঝুঁকি সৃষ্টি হয়।
সরকারের জনস্বাস্থ্য পুষ্টি প্রতিষ্ঠানের কর্মকর্তারা জানান, অতিপ্রক্রিয়াজাত খাবারের ফলে অনুপুষ্টি, অপুষ্টি বা আন্ডারনিউট্রিশন, অতিপুষ্টি বা ওভারনিউট্রিশনের সৃষ্টি হয়। এতে শিশুদের শরীরে নানা ধরনের সমস্যা সৃষ্টি হয়। অনেক ক্ষেত্রে তারা অসংক্রামক রোগের দিকে ধাবিত হয়। কেননা এতে বেশি পরিমাণে কার্বহাইড্রেড, আয়রন, লবণ, চিনিসহ নানা উপাদান থাকে। কোনোটাই পরিমিত নয়। কোনো কোনো ক্ষেত্রে বেশি আবার কোনো কোনো ক্ষেত্রে কম। ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের পুষ্টি ও খাদ্যবিজ্ঞান ইনস্টিটিউটের সাবেক পরিচালক অধ্যাপক ডা. নাজমা শাহীন বণিক বার্তাকে বলেন, অতিপ্রক্রিয়াজাত খাবার ও কোমল পানীয় গ্রহণের ফলে শিশুদের ক্ষুধা নষ্ট হয়ে যায়। এতে পুষ্টি চাহিদার জন্য প্রয়োজনীয় খাবার তাদের খাওয়ানো যায় না। ফলে অত্যাবশ্যকীয় পুষ্টি উপাদান যা তাদের দেহের স্বাভাবিক বৃদ্ধির জন্য প্রয়োজন তা থেকে বঞ্চিত হয় এবং অপুষ্টির শিকার হয়। তিনি বলছেন, বিশ্বের উন্নত দেশে অতিপ্রক্রিয়াজাত খাবারে পুষ্টির বিষয়টি নিশ্চিতের জন্য নিয়ন্ত্রক সংস্থা কঠোর অবস্থানে রয়েছে। এ দেশে এসব তেমন একটা নেই। ফলে অতি মুনাফার জন্য ব্যবসায়িক প্রতিষ্ঠানগুলো পুষ্টি ও স্বাস্থ্যের বিষয়টিতে সতর্ক হচ্ছে না।
ইউনিসেফ বলছে, বাংলাদেশে ৬-২৩ মাস বয়সী প্রতি তিনটি শিশুর মধ্যে মাত্র একজনকে ন্যূনতম সংখ্যক সুপারিশকৃত খাদ্য দেয়া হচ্ছে। গত এক দশকে ধনী ও দরিদ্র শিশুদের মধ্যে পুষ্টিকর খাবার প্রাপ্তির ব্যবধান রয়ে গেছে। ধনী পরিবারের ৪৮ শতাংশ শিশুর তুলনায় দরিদ্র পরিবারে ২২ শতাংশ শিশুর ন্যূনতম খাদ্য বৈচিত্র্য পূরণ হয়। ফলে বিভিন্ন সূচকে অগ্রগতি হলেও বাংলাদেশে পাঁচ বছরের কম বয়সী ৩৬ শতাংশ শিশু অতিরিক্ত ওজন, খর্বাকৃতি ও রুগ্ণতায় ভুগছে।
জনস্বাস্থ্য পুষ্টি প্রতিষ্ঠানের জাতীয় পুষ্টিসেবা কর্মসূচির উপকর্মসূচি ব্যবস্থাপক ডা. গাজী আহমেদ হাসান বলেন, জন্মের ১ ঘণ্টার মধ্যে শিশুকে শালদুধ খাওয়ানো এবং প্রথম ছয় মাস শুধু মায়ের দুধের বিকল্প নেই। ছয় মাস পর থেকে মায়ের দুধের পাশাপাশি ঘরে হাঁড়িতে তৈরি সুষম খাবার খাওয়ানো কাক্সিক্ষত পর্যায়ে না যাওয়ার সঙ্গে সঙ্গে মায়ের দুধের বিকল্প খাবার শিশুর অপুষ্টিতে আক্রান্ত হওয়ার অন্যতম কারণ বলে মনে করেন তিনি।
0 Share Comment
আরও খুজুন। এজন্য নিচের বক্সে লিখে এন্টার চাপুন অথবা সার্চ আইকনে ক্লিক করুন। Find out more. To do this, type in the box below and press Enter or click on the search icon.
$
$

Image Product Price
Mosquito Killer Lamp 900.00 BDT each 12 items in stock
+
Add to cart
Buy 6 in 1 sunglasses 1 100.00 BDT each 9 items in stock
+
Add to cart
Flower Candy Box 1 000.00 BDT each
+
Add to cart
Buy Electric Chula,Osaka 1 550.00 BDT each
+
Add to cart
Door Bell Wireless 600.00 BDT each
+
Add to cart
Buy Electric Doi Maker 720.00 BDT each
+
Add to cart
Buy LCD Writing Tablet 850.00 BDT each
+
Add to cart
Buy Digital Therapy Machine 4 795.00 BDT each
+
Add to cart
Buy Sim Supported Land Phone Set 1 950.00 BDT each
+
Add to cart
Buy Self-Suction Sit Up Bars 910.00 BDT each 11 items in stock
+
Add to cart
Blackheads Remover 1 000.00 BDT each
+
Add to cart
M10 Bluetooth Earbuds 1 000.00 BDT each
+
Add to cart
Nova Electric Kettle 990.00 BDT each
+
Add to cart
Buy Baby Bouncer Chair 1 350.00 BDT each
+
Add to cart
360 degree rotation Mobile Phone Accessories Cell Holder Sockets 400.00 BDT each
+
Add to cart
Refrigerator Storage Box 400.00 BDT each
+
Add to cart
Buy Electric Hot Water Bag 600.00 BDT each
+
Add to cart
Buy Digital Thermometer 300.00 BDT each
+
Add to cart
Buy Electric Popcorn Maker 2 000.00 BDT each
+
Add to cart
Buy Hot Water Tap Digital 2 700.00 BDT each
+
Add to cart
Buy Old Man Walking Stick বৃদ্ধ মানুষের হাঁটার লাঠি 2 100.00 BDT each
+
Add to cart
Buy Electric Paint Zoom 2 850.00 BDT each
+
Add to cart
Econa Insulated Tiffin Box 1 350.00 BDT each
+
Add to cart
Buy Table Pen Holder 520.00 BDT each
+
Add to cart